শাত-ইল-আরব কি?

শাত-ইল-আরব

টাইগ্রিস ও ইউফ্রেটিস নদী দুটি ইরাকের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত হয়ে ইরাক-ইরান সাধারণ সীমান্ত শাত-ইল-আরবে এসে পৌঁছেছে। এ জলপথ ইরাকের পক্ষে সমুদ্রে যাবার একমাত্র পথ। শাত-ইল-আরব জলপথের অধিকারকে কেন্দ্রে করেই মূলত ইরাক-ইরান বিরোধ শুরু হয়।

শাত-ইল-আরবঃ শাত-ইল-আরব ইরাকের দক্ষিণপূর্ব সীমান্তে এবং ইরাকের দক্ষিণ-পশ্চিম সীমান্তে প্রবাহিত হয়ে ইরাক ও ইরানের সাধারণ সীমান্ত কুয়েতের নিকটে এসে পৌঁছেছে। উল্লেখ্য যে, এটা তাইগ্রিস এবং ইউফ্রেটিসের মিলিত স্রোত। শাত-ইল-আরবের পশ্চিম তীরে ইরাকের বসরা শহর। বসরা শহর থেকে ইরাক তেল রপ্তানি করে। পূর্ব তীরে ইরানের আবদান ও খুররম শহর অবস্থিত। এ শহর দুটিতে রয়েছে ইরানের ৯০% তেল।

ভৌগোলিক কৌশলগত অবস্থানের কারণে মধ্যপ্রাচ্যের ইতিহাসে শাত-ইল-আরবের গুরুত্ব অপরিসীম। ইরাক ও ইরানের সাধারণ সীমান্তে অবস্থিত হওয়ায় দেশ দুটির নিকট শাত-ইল-আরবের গুরুত্ব সমান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.