ইখওয়ান কারা?

ইখওয়ান

আধুনিক সৌদি আরব রাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠাতা হলেন আব্দুল আজিজ আস-সউদ ইবনে আবদুর রহমান। তিনি রশীদ এবং হাশেমী বা শরীফ বংশের প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বী শরীফ হোসেনকে পরাজিত করে ১৯৩২ সালে সৌদি রাষ্ট্রটি প্রতিষ্ঠা করেন। এক্ষেত্রে আবদুল আজিজকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করেন ইখওয়ান নামক সুসংগঠিত ধর্মীয় যোদ্ধাদল।

ইখওয়ানদের পরিচয়

আরবের চরমপন্থী ওয়াহাবী সম্প্রদায়কে সাধারণত ইখওয়ান বলা হয়। সৌদি রাজবংশ প্রতিষ্ঠায় সাহায্য করার জন্য আবদুল আজিজ তাদের এক ‘ভ্রাতৃত্বে’ একত্রিত করেন। তারা ইখওয়ান নাম ধারণ করে এবং চরমপন্থী ওয়াহাবী হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করে। অবশ্য কোন কোন সূত্র হতে জানা যায় যে, ইখওয়ান নামে একটি উগ্র হাম্বলী দল পূর্বেই সংগঠিত হয়েছিল। যা হোক, ১৯১৪ সালেই ইখওয়ান প্রকৃত রূপ লাভ করে। শহরবাসীগণ সাধারণভাবে ওয়াহাবী মতবাদে বিশ্বাসী হলেও তারা বেশি সংখ্যায় ইখওয়ানে যোগদান করেনি; প্রধানত বেদুইনগণই এর সদস্য হয়। ১৯১৬ সালে প্রচারিত এক অধ্যাদেশে আবদুল আজিজ সমস্ত বেদুইন গোত্রদের ইখওয়ান আন্দোলনে যোগ দিয়ে এ আন্দোলনের নেতা হিসেবে তাকে যাকাত প্রদানের নির্দেশ দেন। ইখওয়ানদের নিয়ন্ত্রণ করার জন্য তিনি ১৯২২ সালে তাদের জন্য অনেকগুলো স্থায়ী বসতি বা ‘হিজারা’ স্থাপন করে সেখানে বসবাসের নির্দেশ দেন।

আব্দুল আজিজ ‘ইখওয়ান’ প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে বিশেষ করে সামরিক বাহিনীর একটি অঙ্গ সংগঠন হিসেবে ‘ইখওয়ান’ প্রতিষ্ঠা করে তিনি তার রাজনৈতিক ও ধর্মীয় কার্য্যকলাপকে সুদৃঢ় করার প্রয়াস পান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.